বাথরুমের কমোডে হাত আটকে পাবজি খেলোয়াড়ের চিৎকার ‘আমাকে বাঁচাও’। কেউ এগিয়ে আসেনি

এবার বাথরুমে বসে পাবজি খেলার সময় প্রচন্ড উত্তেজনায় হাস ফঁসকে কমোডের ভেতর মুঠোফোন পরে গেলে সেটি উদ্ধার করতে গিয়ে কমোডের সরু পাইপে হাত আটকালেন আজাদ নামে মিরপুরের এক যুবক। গতকাল দিবাগত রাতে রাজধানীর নিকটস্থ বন্যাপ্রবণ মিরপুর এলাকায় এ ঘটনাটি ঘটেছে।

জানা যায়, পাবজি রফিকের নেশা। পাবজি রফিকের পেশা। পাবজি মিশে আছে রফিকের রক্তে। পাবজি সেটে আছে রফিকের হৃদপিন্ডে। রফিক তার হৃদয়ে পাবজি ধারণ করেন। তারই ধারাবাহিকতায় রফিক সেদিন টয়লেটে বসে পাবজি খেলছিলেন। কিন্তু খেলার মাঝে প্রচন্ড উত্তেজনায় রফিকের হাত থেকে ফোনটি কমোডে পরে যায়। এবং গড়াতে গড়াতে ভিতরে চলে যায়। কিন্তু মিশন তখনো শেষ হয়নি। পরবর্তী মিশনে যেতে হলে এই মিশনের গুন্ডাকে গুলি করতে হবে।

তাই রফিক দ্রুত কমোডের ভেতর হাত ঢুকিয়ে দেন এবং পেয়েছি পেয়েছি বলে আনন্দে অন্য হাত দুটো তুলে লাফাতে থাকেন। এরপরই রফিক বুঝতে পারেন, তার ডান হাত কমোডের ভেতর থেকে আর বের হচ্ছেনা। আটকে আছে।

এরপর রফিক প্রায় কয়েক ঘন্টা যাবৎ চিৎকার করে বলতে থাকে, আমাকে বাঁচাও। কিন্তু কোনো পথচারীই তাকে বাঁচাতে এগিয়ে আসেনি। পরে দমকল কর্মীরা হেলিকপ্টার নিয়ে এসে রফিককে উদ্ধার করেন।

Sharing is caring!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *